সু চির বিরুদ্ধে দুই মামলার রায় পেছাল

0 68

||বিদেশ-বিভূঁই প্রতিবেদন ||

জান্তা-শাসিত মিয়ানমারের একটি আদালত দেশটির ক্ষমতাচ্যুত নেত্রী অং সান সু চির বিরুদ্ধে দায়ের হওয়া দুটি মামলার রায় ১০ জানুয়ারি পর্যন্ত স্থগিত করেছেন। বিষয়টি নিশ্চিত করেছে সু চির পরিবার। সোমবার বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, লাইসেন্সবিহীন ওয়াকি-টকি রাখার অপরাধে রায় ঘোষণা হওয়ার কথা ছিল ৭৬ বছর বয়সী নোবেলজয়ীর বিরুদ্ধে।

এছাড়াও মিয়ানমারের নেত্রীর বিরুদ্ধে একাধিক মামলা চলমান রয়েছে। সবগুলোর রায় সু চির বিরুদ্ধে গেলে আজীবন কারাগারে থাকতে হতে পারে।

সু চির বিরুদ্ধে জান্তা সরকারের দায়ের করা মামলাগুলোর মধ্যে উসকানি ও করোনোর বিধিনিষেধ লঙ্ঘনের অভিযোগে দায়ের হওয়া মামলায় ৭ ডিসেম্বর রায় ঘোষণা করা হয়। এই রায়ে সু চি দোষী প্রমাণিত হন।

মিয়ানমারের স্বাধীনতা সংগ্রামের নায়কের মেয়ে সু চি। তিনি দেশ-বিদেশে গণতন্ত্রপন্থী নেত্রী হিসেবে পরিচিত। মিয়ানমারে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠার জন্য সু চি দীর্ঘদিন ধরে সংগ্রাম করেন। জান্তা শাসনের বিরোধিতা করার জন্য তাঁকে দীর্ঘ সময় গৃহবন্দী থাকতে হয়। তবে তার সাজা দুই বছর মওকুফ করেন জান্তা সরকারের প্রধান মিন অং হ্লাইং।

গত ১ ফেব্রুয়ারি সু চির সরকারকে উৎখাত করে ক্ষমতায় বসে সামরিক সরকার। এই সরকারের বিরুদ্ধে চলমান আন্দোলনে নিরাপত্তা বাহিনীর হাতে হাজারো মানুষ প্রাণ হারিয়েছে।

এবি//এফএস

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More