মারা গেছেন চিত্রনায়ক শাহীন আলম

0 65

।।সংস্কৃতির মঞ্চ প্রতিবেদন।।

চিত্রনায়ক শাহীন আলম মারা গেছেন। কিডনিজনিত জটিলতায় সোমবার রাতে মৃত্যু হয় এই অভিনেতার। তথ্যটি নিশ্চিত করেছেন চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির সাধারণ সম্পাদক জায়েদ খান।

জায়েদ খান জানান, সোমবার রাত ১০টার কিছু পরে মারা যান শাহীন আলম। হাসপাতালের আনুষ্ঠানিকতা সেরে মরদেহ রাতেই গুলশানের বাসার দিকে নিয়ে যাওয়া হবে। ফজরের নামাজের পর তার জানাজা নামাজ গুলশান নিকেতন মসজিদে অনুষ্ঠিত হবে। এরপর এই অভিনেতাকে দাফন করা হবে বনানী কবরস্থানে।

জানা যায়, করোনার কারণে শাহীন আলমের লাশ এফডিসিতে নেওয়া হবে কিনা সেটাও অনিশ্চিত। মূলত পরিবারের সদস্যরা সেটি চাচ্ছেন না বলে জানা গেছে।

কিডনিজনিত জটিলতা গুরুতর হলে গত সপ্তাহে তাকে রাজধানীর আজগর আলী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। ৬ মার্চ থেকে লাইফ সাপোর্টে ছিলেন শাহীন আলম।

১৯৮৬ সালে ‘নতুন মুখের সন্ধানে’র মাধ্যমে চলচ্চিত্রে অভিনয়ের সুযোগ পান শাহীন আলম। তার অভিনীত প্রথম সিনেমা ‘মায়ের কান্না’ ১৯৯১ সালে মুক্তি পায়। তার অভিনীত উল্লেখযোগ্য চলচ্চিত্রের মধ্যে রয়েছে ‘ঘাটের মাঝি’, ‘এক পলকে’, ‘গরিবের সংসার’, ‘তেজী’, ‘চাঁদাবাজ’, ‘প্রেম প্রতিশোধ’, ‘টাইগার’, ‘রাগ-অনুরাগ’, ‘দাগী সন্তান’, ‘বাঘা-বাঘিনী’, ‘আলিফ লায়লা’, ‘স্বপ্নের নায়ক’, ‘আঞ্জুমান’, ‘অজানা শত্রু’, ‘দেশদ্রোহী’, ‘প্রেম দিওয়ানা’, ‘আমার মা’, ‘পাগলা বাবুল’, ‘শক্তির লড়াই’, ‘দলপতি’, ‘পাপী সন্তান’, ‘ঢাকাইয়া মাস্তান’, ‘বিগবস’, ‘বাবা’ ও ‘বাঘের বাচ্চা’।

এফএস//এমএইচ

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More