ভাড়া করা সাপ দিয়ে দংশন করিয়ে স্ত্রীকে হত্যা!

0 186

||বিদেশ-বিভূঁই প্রতিবেদন||

সাপ দিয়ে দংশন করিয়ে নিজের স্ত্রীকে হত্যার অভিযোগ উঠেছে ভারতের কেরালার কল্লাম জেলার এক যুবকের বিরুদ্ধে। পরপর দুইবার সাপ দিয়ে দংশনে স্ত্রী উথরাকে (২৫) হত্যার অভিযোগ সম্প্রতি প্রমাণিত হয়েছে স্বামী সুরাজের বিরুদ্ধে।

সুরাজ ও উথারা দম্পতি, বিয়ের পর

চাঞ্চল্যকর এই ঘটনায় আদালত কারাদণ্ড দিয়েছে সুরাজকে, তবে মামলা এখনো চলমান। পুরো বিচারিক প্রক্রিয়া শেষে ফাঁসির সম্ভাবনা রয়েছে সুরাজের। পরপর দুবার সাপে দংশনের বিষয়টি নিয়ে সন্দেহ হয় উথরার বাবা এবং ভাইয়ের। তারা পুলিশের কাছে অভিযোগ করলে তদন্ত শেষে বেরিয়ে আসে উথরার মৃত্যুর আসল কারণ।

পুলিশের তদন্ত ফলাফলের বরাতে ভারতীয় গণমাধ্যম হিন্দুস্তান টাইমস বলছে, ২০২০ সালের শুরুতে সম্পত্তির লোভে সুরাজ একটি ভাইপার জাতীয় সাপ ভাড়া করে দংশন করান উথরাকে। হাসপাতালে ৫১ দিন লড়াই করে প্রাণে বেঁচে গেলেও, শারীরিক ভাবে অত্যন্ত দুর্বল হয়ে পড়েন তিনি। কার্যসিদ্ধি না হওয়ায় সুরাজ এরপর একটি কোবরা সাপ ভাড়া করেন। এরপর ২০২০ সালের ৭ মে সেই কোবরার কামড়েই প্রাণ হারান স্ত্রী উথরা।

বিচারক তার রায়ে পুলিশের প্রশংসা করে বলেছেন, পুলিশ এই তদন্তে যেভাবে অগ্রসর হয়েছে তা প্রশংসার দাবি রাখে। এমনকি সুরাজকে সাপ ভাড়া দিতো সুরেশ নামের যে ব্যক্তি, তাকেও খুঁজে বের করার মধ্যে পুলিশের কৃতিত্ব আছে।

এসএ//এমএইচ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More