আফগানিস্তানে টিভি নাটকে নিষিদ্ধ নারী

0 9

||বিদেশ-বিভূঁই প্রতিবেদন||

আফগানিস্তানে টেলিভিশন চ্যানেলের জন্য নতুন নির্দেশিকা জারি করেছে ক্ষমতাসীন তালেবান সরকার। নতুন আইনে টিভি নাটকে নারীদের উপস্থিতি নিষিদ্ধ করল কট্টরপন্থি এই গোষ্ঠীটি। এছাড়াও নির্দেশাবলীতে মোট আটটি ব্যাপারে বিধিনিষেধ দেয়া হয়েছে। সোমবার (২২ নভেম্বর) এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি।

এছাড়া নির্দেশনা অনুযায়ী টেলিভিশনের পর্দায় হাজির হবার সময় নারী সাংবাদিক এবং উপস্থাপিকাদের হিজাব পরতে বলা হয়েছে। তবে উল্লেখ করা হয়নি হিজাবের ধরণ।

সাংবাদিকরা বলছেন, আফগান সরকারের কিছু নিয়ম অস্পষ্ট এবং সেগুলোর ব্যাখ্যা প্রয়োজন। ক্ষমতা নিয়ন্ত্রণে নেওয়ার পর নারীদের অধিকার বাস্তবায়নে নানা পদক্ষেপের প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন তালেবান নেতারা। তবে সেগুলো এখন দৃশ্যমান হচ্ছে না।

নির্দেশনা অনুযায়ী, এর মধ্যে শরিয়া আইনের বিরুদ্ধে যায় এমন সিনেমা নিষিদ্ধ থাকবে। এছাড়া সিনেমার দৃশ্যে পুরুষের অনাবৃত শরীর দেখানো যাবে না। কমেডি ও বিনোদনমূলক শোতে ধর্মকে অবজ্ঞা করা যাবে না কিংবা আফগানদের কাছে আক্রমণাত্মক বিবেচিত হয় এমন সবকিছু নিষিদ্ধ থাকবে। যেসব বিদেশি ফিল্ম বিদেশি মূল্যবোধ প্রচার করে সেগুলো সম্প্রচার করা যাবে না।

আফগানিস্তানে সাংবাদিকদের প্রতিনিধিত্বকারী সংগঠন, হুজ্জাতুল্লাহ মুজাদ্দেদির এক সদস্য বলেছেন, নতুন এই নিষেধাজ্ঞার ঘোষণা অপ্রত্যাশিত। কিছু নিয়ম বাস্তবসম্মত নয় এবং তা কার্যকর হলে সম্প্রচারকারীরা টেলিভিশন অনুষ্ঠান সম্প্রচার বন্ধ করতে বাধ্য হতে পারেন।

তবে তালেবানে দাবি, কর্মরত নারী এবং শিক্ষা গ্রহণকারী ছাত্রীদের ওপর তাদের এসব নিষেধাজ্ঞা “অস্থায়ী”। তাদের জন্য কর্মক্ষেত্র এবং শিক্ষার পরিবেশন পুরোপুরি “নিরাপদ” করার জন্যই এই ধরণের পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে।

এসএ//এফএস

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More